বাংলাদেশ সামরিক জাদুঘর

ধরন: যাদুঘর
সহযোগিতায়: Nayeem
Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

বিস্তারিত

১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের পর বাংলাদেশ সরকার একটি পরিপূর্ণ সামরিক বাহিনী গঠন করে। বাংলাদেশের সামরিক বাহিনীর গৌরবময় ইতিহাস সম্পর্কে জনসাধারনকে অবহিত করতে ২০০৪ সালে সামরিক জাদুঘর উন্মুক্ত করা হয়। নভোথিয়েটারের পাশেই শের-ই-বাংলা নগর থানার অধীনে বিজয়স্মরনীতে অবস্থিত সকলের জন্য উন্মুক্ত এই জাদুঘরটিতে প্রবেশ করতে কোন প্রবেশ মূল্য দিতে হয়না।

বুধবার ব্যতিত শনিবার থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা এবং শুক্রবার দুপর ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এই জাদুঘরটি উন্মুক্ত থাকে। ১৬ই ডিসেম্বর এবং ২৬শে মার্চ ব্যাতিত সরকারি ছুটির দিনে বাংলাদেশ সামরিক জাদুঘর বন্ধ থাকে। এই জাদুঘরের অভ্যন্তরে দুটি বিশাল কক্ষ রয়েছে। এছাড়া জাদুঘরের সামনে মাঠে আপনি ২৬টি বিভিন্ন মডেলের ট্যাংকসহ বিভিন্ন ধরনের সাঁজোয়া যান দেখতে পারবেন।


কিভাবে যাবেন

ঢাকার বিভিন্ন স্থান থেকে বিজয়স্মরনী অতিক্রমকারী বেশকিছু লোকাল বাস চলাচল করে। আপনি যদি উত্তরা অথবা ফার্মগেট থেকে মহাখালী হয়ে চলাচল করেন তবে সামরিক জাদুঘরে পৌছাতে আপনাকে শের-ই-বাংলা নগরের বিজয় স্মরনীতে নামতে হবে।

কিভাবে পৌঁছাবেন: ঢাকা শহর

কোথায় থাকবেন

কি করবেন

সামরিক জাদুঘরের প্রতিটি গ্যালারীর প্রদর্শনী উপভোগ করার মাধ্যমে বাংলাদেশের সামরিক বাহিনীর শক্তি ও গৌরবকে অনুভব করতে পারেন।

খাবার সুবিধা

ভ্রমণ টিপস

বাংলাদেশের কিছু উল্লেখযোগ্য জাদুঘর হলোঃ

১। খুলনা জাদুঘর

২। বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘর

৩। বরেন্দ্র গবেষণা জাদুঘর

মানচিত্র

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো দেখুন

অন্যদের ওয়েবসাইট থেকে

  • বাংলাদেশ সামরিক জাদুঘর, বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা শহরের বিজয় সরণিতে অবস্থিত একটি জাদুঘর। জাদুঘরটি বাংলাদেশ সেনাবাহিনী কর্তৃক নিয়ন্ত্রিত হয়। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ইতিহাস, ঐতিহ্য, সাফল্য সংক্রান্ত নিদর্শন ও বিভিন্ন অস্ত্র-শস্ত্রের সংগ্রহ নিয়ে জাদুঘরটি সজ্জিত।

কথা বলুন

এই মুহূর্তে অনলাইনে না থাকায় আমরা দুঃখিত! কিন্তু আপনি আমাদের ই-মেইল পাঠাতে পারেন। আমরা ২৪ ঘন্টার মধ্যে আপনার প্রশ্নের উত্তর দেব।

আপনার প্রশ্ন বা সমস্যার সহযোগিতা করায় আমরা সর্বদা তৎপর!

ENTER ক্লিক করুন